,
সংবাদ শিরোনাম :

মোংলায় কয়লা বোঝাই জাহাজ ডুবি

এফএনএস: বাগেরহাটে মোংলায় ৭৭৫ মেট্রিকটন কয়লা নিয়ে একটি লাইটার জাহাজ ডুবে গেছে। মোংলা বন্দরের হারবারিয়া এলাকায় গত শনিবার রাত ৩টার দিকে এমভি বিলাস নামে লাইটার জাহাজটি ডুবে যায় বলে বন্দর কর্তৃপক্ষের হারবার মাস্টার মোহম্মদ ওয়ালিউল­াহ জানান। বন্দর থেকে প্রায় ৬০ নটিক্যাল মাইল দূরে হারবাড়িয়া ৫ নম্বর অ্যাংকরে ডুবোচরে আটকে এ লাইটারটি ডুবিতে হতাহতের কোনো ঘটনা ঘটেনি বলে জানান তিনি। কয়লা আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান সাহারা এন্টারপ্রাইজের ব্যবস্থাপক (অপারেশন) মো. লালন হাওলাদার বলেন, গত ১৩ এপ্রিল লাইবেরিয়ার পতাকাবাহী এমভি অবজারভেটর জাহাজটি সাড়ে ২৪ হাজার মেট্রিকটন কয়লা নিয়ে মোংলা বন্দরের হারবাড়িয়ার ৬ নম্বর অ্যাংকরে নোঙর করে। গত শনিবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত ওই জাহাজ থেকে এক হাজার মেট্রিকটন ধারণক্ষমতার লাইটার এমভি বিলাস ৭৭৫ মেট্রিকটন কয়লা নিয়ে ঢাকার মিরপুরের উদ্দেশে রওনা হয়। পরে হারবাড়িয়ার ৫ নম্বর অ্যাংকরে লাইটারটি পৌঁছলে ডুবো চরে আটকা পড়ে। লাইটারের মাস্টার ডুবোচর থেকে উদ্ধার পাওয়ার জন্য মোংলা বন্দরের সাহায্য চায়। বন্দর কতৃপক্ষের উদ্ধার যানটি ঘটনাস্থলে পৌঁছেও তা রক্ষা করতে পারেনি। প্রবল জোয়ারের চাপে কয়লা বোঝাই লাইটারটি কাত হয়ে ডুবে যায় বলে জানান তিনি। লাইটারের কয়লা কোথাও ভেসে যায়নি এবং এতে পরিবেশের কোনো ক্ষতির আশঙ্কাও নেই বলে দাবি করে ওই আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান। হারবার মাস্টার ওয়ালিউল­াহ বলেন, কয়লাবাহী লাইটার এমভি বিলাস সাহায্য চাইলে উদ্ধার যান এমভি শিপসা সেখানে পৌঁছে উদ্ধারের চেষ্টা করে। তবে রাত ৩টার দিকে জোয়ারের পানির তোড়ে কয়লা বোঝাই লাইটারটি কাত হয়ে ডুবে যায়। লাইটারটি দেখা যাচ্ছে। তা উদ্ধার করার চেষ্টা চলছে বলে জানান তিনি।

Share
[related_post themes="flat" id="250085"]

সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ॥ জিএম নুর ইসলাম, কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল, যশোর রোড, সাতক্ষীরা, ফোন ও ফ্যাক্স ॥ ০৪৭১-৬৩০৮০, ০৪৭১-৬৩১১৮
নিউজ ডেস্ক ॥ ০৪৭১-৬৪৩৯১, বিজ্ঞাপন ॥ ০১৫৫৮৫৫২৮৫০ ই-মেইল ॥ driste4391@yahoo.com