,
সংবাদ শিরোনাম :
» « সব পর্যায়ে বাড়লো বিদ্যুতের দাম» « জেলা লিগ্যাল এইড কমিটির সভায় জেলা ও দায়রা জজ শেখ মফিজুর রহমান ॥ আইন সবার জন্য সমান» « জেলা পর্যায়ে শুদ্ধস্বরে জাতীয় সংগীত প্রতিযোগিতা ॥ পিএন বিয়াম, সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও তালা মহিলা কলেজ শীর্ষে» « নতুন জীবনে সাতক্ষীরার সৌম্য: খুলনা ক্লাব ছিল আলোকিত» « সপ্তাহব্যাপী আঞ্চলিক এসএমই পণ্য মেলা শুরু ২৯ ফেব্র“য়ারি» « বৈদেশিক কর্মসংস্থানের জন্য দক্ষতা ও সচেতনতা শীর্ষক সেমিনার» « কৃষিতে এগিয়ে চলেছে বাংলাদেশ» « মশা যেন ভোট না খেয়ে ফেলে, ঢাকার নতুন মেয়রদের প্রধানমন্ত্রী» « দেবহাটা রুপসী ম্যানগ্রোভ পরিদর্শন করলেন জেলা প্রশাসক» « পূর্ব জোনের শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ নির্বাচিত হলেন আশাশুনির ওসি» « ভয়ঙ্কর যত রেল দুর্ঘটনা ॥ বিহারের ট্রেন দুর্ঘটনা [ভারত], মৃতের সংখ্যা : ৮০০

ঘেরের বাসা ভাংচুর ও ৫লক্ষ টাকার মাছ লুটের অভিযোগ ॥ মাদরায় জলমহাল উন্মুক্তকালে নারীদের হাতে ইউএনও লাঞ্জিত

তালা প্রতিনিধি ॥ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. ইকবাল হোসেন সোমবার দুপুর থেকে বিকাল পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে মাগুরা ইউনিয়নে ৩টি জলমহাল উন্মুক্ত করেন। সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক কর্তৃক খাল শ্রেণির জমির ১সনা বন্দোবাস্ত বাতিল ঘোষনার পর তালার ৩টি জলমহাল উন্মুক্ত করা হয়েছে। এসময় একদল দূর্বৃত্ত জলমহালের ৫টি টোং ঘর ভাংচুর সহ মূল্যবান আসবাবপত্র এবং জলমহাল থেকে প্রায় ৫লক্ষ টাকার মাছ লুটপাট করে বলে- ক্ষতিগ্রস্থরা অভিযোগ করেছেন। এদিকে, স্থানীয় পূজা মন্দির কমিটির তত্বাবধানে থাকা ইজারাভুক্ত খোবরাখালি খাল’র একটি অংশ উন্মুক্ত করার সময় মাদরা গ্রামের ক্ষুব্ধ নারীরা উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে লাঞ্ছিত করে। তবে ইউএনও ইকবাল হোসেন জানিয়েছেন, তিনি শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত হননি। তার সঙ্গে থাকা লোকজন হামলার শিকার হয়েছেন। জানাগেছে, উপজেলার মাগুরা ইউনিয়নের মাদরা গ্রামে ইউএনও ইকবাল হোসেন পুলিশ সদস্য ছাড়ায় বালিয়াদহ গ্রামের বিএনপি ও জামায়াত সমর্থীত লোকজন নিয়ে ইজারাভুক্ত খোবরাখালি জলমহাল, মাদরা পূজা মন্ডপের নিয়ন্ত্রাধিন এই জলমহালের একটি অংশ এবং বাইনতলা খাল জলমহাল উন্মক্ত করার অভিযান চালান। খোবরাখালী জলমহাল সমীর কুমার দাস এবং বাইনতলা জলমহাল মাগুরাডাঙ্গা মৎস্যজীবী সমবায় সমিতি ইজারা নিয়ে সেখানে মাছ চাষ করছে। কিন্তু ইউএনও ইকবাল হোসেন পূর্ব ঘোষনা ছাড়ায় জলমহাল উন্মুক্ত করেন। এসময় ইউএনও’র উপস্থিতিতে দূর্বৃত্তরা দুটি জলমহাল থেকে ৫লক্ষ টাকার মাছ লুটপাট করে এবং পরিকল্পিত ভাবে খোবরাখালি জলমহালের ৫টি ঘর ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয়া সহ আসবাবপত্র লুটপাট করে। পরে পূজা মন্দির কমিটির নিয়ন্ত্রনাধিন খোবরাখালি জলমহালের একটি অংশ উন্মুক্ত করার চেষ্টাকালে গ্রামের লোকজন ইউএনওকে জলমহালের ইজারার কাগজপত্র আছে বলে জানিয়ে তারা কয়েকদিনের সময় প্রার্থনা করেন। কিন্তু ইউএনও তাতে সম্মত না হওয়ায় গ্রামবাসী উত্তেজিত হয়ে ওঠে। তারা ইউএনও এবং তাঁর সঙ্গী লোকদের ঘিরে ধরে হামলা চালায়। হামলাকারীরা ইউএনও’র শার্ট ধরে টানাটানি সহ ধাক্কাধাক্কি করে এবং একদল নারী ঝাঁটা নিয়ে তেড়ে আসে। একই সাথে মাছ লুটপাটকারী বালিয়াদহ গ্রামের কতিপয় দূর্বৃত্তদের সাথে মাদরা গ্রামবাসীর ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া হলে সেখানে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। একপর্যায়ে সংবাদ পেয়ে তালা থানা ও খেশরা ক্যাম্প থেকে পুলিশ এসে ইউএনও ইকবাল হোসেনকে উদ্ধার সহ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করেন। এঘটনায় সংশি−ষ্ট মাগুরা ইউপি চেয়ারম্যান গনেশ দেবনাথ হামলার ঘটনা স্বীকার করে বলেন, বিষয়টি অনাকাঙ্খিত। এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. ইকবাল হোসেন জানান, জেলা প্রশাসক মহোদয়’র নির্বাহী আদেশে ইজারা বাতিল হওয়া খালের বাঁধ ও নেটপাটা অপসারন করে খাল উন্মুক্ত করার সময় কিছু লোক হামলা করে। তবে, তিনি শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত না হলেও তার সঙ্গে থাকা লোকজন হামলার শিকার হয়েছেন এবং ঘটনার ভিডিও করার তারা মোবাইল ফোন কেড়ে নিয়েছে বলে জানান। এ বিষয়ে তালা থানার ওসি মেহেদী রাসেল জানান, পুলিশ তৎক্ষনাত ঘটনাস্থল যেয়ে পরিস্থিতি শান্ত করেন। এ ঘটনায় কোন মামলা হয়নি বলে তিনি জানান।

Share
[related_post themes="flat" id="302006"]

সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ॥ জিএম নুর ইসলাম, কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল, যশোর রোড, সাতক্ষীরা, ফোন ও ফ্যাক্স ॥ ০৪৭১-৬৩০৮০, ০৪৭১-৬৩১১৮
নিউজ ডেস্ক ॥ ০৪৭১-৬৪৩৯১, বিজ্ঞাপন ॥ ০১৫৫৮৫৫২৮৫০ ই-মেইল ॥ driste4391@yahoo.com