,
সংবাদ শিরোনাম :
» « শ্যামনগরে গাজাসহ মাদক ব্যবসায়ী আটক» « আশাশুনিতে অসহায়দের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ» « পাটকেলঘাটায়পটল ও বেগুন গাছ কেটে ক্ষতি সাধন» « সাতক্ষীরার কালিগঞ্জে সাবেক ইউপি সদস্যকে পিটিয়ে জখম, থানায় মামলা» « দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ২১৮, মৃত্যু বেড়ে ২০» « বঙ্গবন্ধুর খুনি মাজেদের ফাঁসির পরোয়ানা জারি» « বাগেরহাটে ৩ ঘণ্টার ব্যবধানে বৃদ্ধ দম্পতির মৃত্যু» « করোনায় মৃত্যু ৮২ হাজার ছাড়ালো» « সাতক্ষীরা জেলা ট্রাক মালিক সমিতির খাদ্য সামগ্রী বিতরন» « শ্যামনগর থানা পুলিশের রোল কল, চেকপোস্ট বসানো ও পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযান» « সাড়ে ১৭ লাখ মেট্রিক টন বোরো ধান ও চাল কিনবে সরকার

আশাশুনির খাজরায় ১৩ টি পরিবার বিদ্যুতের আলো থেকে বঞ্চিত

আশাশুনি অফিস ঃ আশাশুনি উপজেলার খাজরা ইউনিয়নে বীর মুক্তিযোদ্ধাসহ ১৩টি পরিবারের সদস্যরা ১৫/১৬ বছর যাবৎ বিদ্যুৎ সংযোগ না পেয়ে চরম বিপাকে রয়েছে। ১৯৭১ সালে জীবনের মায়া ত্যাগ করে দেশের জন্য মুক্তিযুদ্ধে অংশ নেওয়া বীরমুক্তিযোদ্ধা দীনেশ চন্দ্র মন্ডল জানান-সরকার প্রতিটি ঘরে বিদ্যুৎ পৌছে দেওয়ার অঙ্গীকার নিয়ে বিদ্যুৎ বিভাগের মাধ্যমে বিদ্যুৎ সংযোগের কাজ সহজ ও দ্রুততর সময়ে সম্পাদনের কাজ করে যাচ্ছেন। কিন্তু সেই কাজকে বাস্তবায়নে খাজরার কিছু পরিবারকে অবহেলার চোখে দেখা হচ্ছে। খাজরার দুর্গাপুর গ্রামের বীরমুক্তিযোদ্ধা দীনেশ চন্দ্র মন্ডল, শিবপ্রসাদ মন্ডল, শংকর ঢালী, অরবিন্দ ঢালী, বিকাশ ঢালী, প্রসাদ ঢালী, ভবেন্দ্র মন্ডল, যমুনা রানী, নলিনী মন্ডল, তরুন মন্ডল, পঞ্চরাম মন্ডল, শিবপদ ঢালী, আঃ হান্নান মোড়ল একই মহল্লায় বসবাস করেন। তাদের বাড়ির পাশ দিয়ে বিদ্যুৎ লাইন চলে গেছে। ১৫/১৬ বছর আগে তারা বিদ্যুৎ সংযোগ পেতে বিদ্যুৎ বিভাগে পাটকেলঘাটা অফিসে যোগাযোগ করেন। কিন্তু তাদেরকে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়ার লক্ষণ না দেখে তারা বারবার যোগাযোগ করতে থাকনে। কিন্তু কোন বিদ্যুৎ বিভাগের কোন তৎপরতা তারা দেখতে পাননি। বাধ্য হয়ে ৩ বছর আগে তারা অন লাইন আবেদন করেন। এরপর সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডাঃ আ ফ ম রুহুল হক এমপি ফোন করিয়ে নেন। এক বছর আগে তাদের এলাকায় গিয়ে বিদ্যুতের লাইনের জন্য মাপজোক শুরু করেন। মুক্তিযোদ্ধার বাড়ির সীমানা থেকে মাত্র ৩ গজ দূরে কোমল চন্দ্র মন্ডলের বাড়িতে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া হয়েছে, বাড়ির সীমানায় সুনীল চন্দ্র চক্রবর্তী ও দুখে রাম ঢালীর বাড়িতে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া হয়েছে। কিন্তু মুক্তিযোদ্ধা দীনেশ ও তাদের পাশের ১৩টি পরিবার বরাবারই বঞ্চিত রয়ে গেলেন। মুক্তিযোদ্ধা দীনেশ মন্ডল বলেন, তার স্ত্রী হার্টের রোগি, গরমে অসহায় হয়ে পড়ে। এছাড়া বর্তমান যুগে বিদ্যুৎ ছাড়া লেখাপড়াসহ যাবতীয় কাজকাম সত্যি অসম্ভব হয়ে পড়েছে। পাটকেলঘাটা বিদ্যুৎ অফিসে গিয়ে কথা বলার পরেও কাজ হচ্ছে না।

Share
[related_post themes="flat" id="311567"]

সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ॥ জিএম নুর ইসলাম, কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল, যশোর রোড, সাতক্ষীরা, ফোন ও ফ্যাক্স ॥ ০৪৭১-৬৩০৮০, ০৪৭১-৬৩১১৮
নিউজ ডেস্ক ॥ ০৪৭১-৬৪৩৯১, বিজ্ঞাপন ॥ ০১৫৫৮৫৫২৮৫০ ই-মেইল ॥ driste4391@yahoo.com