1. admin@dainikdrishtipat.com : admin :
  2. driste4391@yahoo.com : Dailik Drishtipat : Dailik Drishtipat
শনিবার, ০৪ জুলাই ২০২০, ১০:২৬ পূর্বাহ্ন

ভূট্টা ক্ষেত থেকে নারীর লাশ উদ্ধার

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • Update Time : মঙ্গলবার, ১১ জুন, ২০১৯

এফএনএস: রাজশাহীর বাঘায় ভূট্টা ক্ষেত থেকে মুখে মবিল মাখানো গোলাপি বেগম (৪৫) নামের এক নারীর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। গত সোমবার সন্ধ্যায় উপজেলার বাউসা ইউনিয়নের চক বাউসা গ্রামের মাঠ থেকে এ লাশ উদ্ধার করে বাঘা থানার পুলিশ। গোলাপি বেগম উপজেলার আড়ানী পৌরসভার পাঁচপাড়া গ্রামের বাকপ্রতিবন্ধী মোনির হোসেনের স্ত্রী। আড়ানী পৌরসভার নারী কাউন্সিলর ও পাঁচপাড়া গ্রামের মর্জিনা বেগম বলেন, ঈদের আগে গত ২৯ মে রুস্তমপুর হাটে ৪২ হাজার টাকায় একটি গরু বিক্রি করে। পরের দিন বিদ্যুৎ বিল দেয়ার নাম করে বাড়ি থেকে বের হয় গোলাপি। আর ফিরে আসেনা। বিভিন্নস্থানে খোঁজাখুঁজি করা হয়। কথাও না পেয়ে গোলাপি বেগমের ভাসুর মাজদার রহমান বাদি হয়ে ১ জুন বাঘা থানায় সাধারণ ডাইরী (জিডি) করেন। তিনি আরো বলেন, প্রায় ৪ মাস আগে গোলাপি বেগম ৬ বছরের পুত্র সন্তান মারুফ হোসেনকে রেখে রুস্তমপুরের এক যুবকের সাথে পরকিয়া করে ঘর ছেড়ে চলে যায়। গোলাপি বেগমের স্বামী বাকপ্রতিবন্ধী হওয়ায় পরে আমি ও স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতারা পুনরায় মেয়ে বুঝিয়ে স্বামীর বাড়িতে আনা হয়। গোলাপি বেগমের শাশুড়ি মরিয়ম বেগম বলেন, আমার ছেলের বৌ-এর পেটে ৬ মাসের সন্তান রয়েছে। আমার ধারনা যার সাথে পরকিয়া ছিল। সে এমন কাজ করেছে। তাকে গ্রেফতার করে জিজ্ঞাসাবাদ করলে এর রহস্য বেরিয়ে আসবে। গোলাপি বেগমের শশুর বিচ্ছাদ আলী বলেন, আমার ছেলে বাকপ্রতিবন্ধী হওয়ায় গোলাপি নিজের ইচ্ছেমতো চলাফেরা করে। আমরা প্রতিবাদ করলে আমাদের বিভিন্ন কথা শুনে দেয়। ফলে আমরা দেখেও না দেখার ভান করে চলি। এরমধ্যে আমার ছেলে ও নাতীকে রেখে অন্য একটি ছেলের সাথে চলে গিয়েছিল। এলাকার লোজনকে ধরে পূনরায় ফিরে আনা হয়েছে। সর্বশেষ বিদ্যুতের বিল দেয়ার নাম করে বাড়ি থেকে বের হয় আর ফিরে আসেনি। পরে চকবাউসা গ্রামের লালু প্রামানিকের ভ’ট্টা ক্ষেতে লাশ পাওয়া গেলো। এ বিষয়ে বাঘা থানার ওসি মহসীন আলী জানান, খরব পেয়ে লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তবে লাশের পাশে থেকে একটি কালো বোরকা, এক জোড়া সেন্ডেল, একটি গুলের কোটা পাওয়া যায়। তবে ওড়না দিয়ে গলা বেচানো ছিল। তার মুখোমন্ডল ও গোপনীয়স্থানে মবিল মাখানো ছিল। এ বিষয়ে ধারনা করা হচ্ছে অন্য জায়গায় তাকে হত্যা করে চকবাউসা গ্রামের লালু প্রামানিকের ভ’ট্টা ক্ষেতে লাশ ফেলে রাখা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সকালে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। তবে এ বিষয়ে গোলাপি বেগমের স্বামী মোমির হোসেন, শশুর বিচ্ছাদ আলী, শাশুড়ি মরিয়ম বেগম, জা সজেদা বেগমকে থানায় জিজ্ঞাসাবাদ করে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।

শেয়ার

আরও খবর
© All rights reserved © 2020 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazardristip41