1. admin@dainikdrishtipat.com : admin :
  2. driste4391@yahoo.com : Dailik Drishtipat : Dailik Drishtipat
বৃহস্পতিবার, ০৯ জুলাই ২০২০, ০৮:২৪ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
ত্যাগ, মানবতা, ঐক্য আর সৃষ্টিশীলতার প্রতিমুখ ॥ পরপারে খাদেম সাহেব ॥ আমাদের শোক গাঁথা ॥ আমাদের হারানোর বেদনা ঘরে ঘরে করোনা: কেউ বলছে ॥ কেউ চুপ ॥ রোগের নতুন উপসর্গ সর্দি-জ্বর ঘোনায় ভবন নির্মাণ কাজ উদ্বোধন করলেন এমপি রবি সাতক্ষীরায় করোনা আক্রান্তদের সেবা প্রদানের জন্য প্লাজমা ব্যাংক উদ্বোধন করলেন পুলিশ সুপার মোস্তাফিজুর রহমান সাতক্ষীরায় চিকিৎসক, স্বাস্থ্য কর্মী সহ আরো ৩১ জনের করোনা পজেটিভ ॥ মেডিকেলে উপসর্গ নিয়ে এক স্বাস্থ্যকর্মী মৃত্যু স্বাস্থ্যকর্মী ছেলের মৃত্যুর সংবাদ পেয়ে মায়ের মৃত্যু ট্রাকের ধাক্কায় এক ভাটা শ্রমিক নিহত দৈনিক দৃষ্টিপাত পরিবারের শোক ঘূর্ণিঝড় আম্পানে ক্ষতিগ্রস্ত গৃহহীন পরিবারে খাদ্য সহায়তা প্রদান করলেন বাবু জেলা নাগরিক অধিকার ও উন্নয়ন সমন্বয় কমিটির শোক

শ্যামনগরে বিদ্যুৎ সংযোগের নামে নাঈমের বিরুদ্ধে মোটা অংকের টাকা আত্মসাতের অভিযোগ

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • Update Time : শুক্রবার, ১ নভেম্বর, ২০১৯

বিশেষ প্রতিনিধি ॥ শ্যামনগরে পল্লী বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়ার নাম করে হলুদ সাংবাদিক হাফিজুর রহমান নাঈম কারিকার ওরফে নাঈম চৌধুরী বিরুদ্ধে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ করেছেন এলাকাবাসী। অভিযোগ সূত্রে সরজমিন গিয়ে জানা যায়, উপজেলার নুরনগরের কাটাখালী ও দুরমুজখালী গ্রামের শত শত পরিবারের কাছ থেকে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়ার নাম করে হলুদ সাংবাদিক নাঈম মোটা অংকের টাকা উত্তোলন করেন। এলাকাবাসী অভিযোগ করে বলেন, চৌধুরী নাঈম আমাদের এলাকায় বিদ্যুৎ সংযোগ এনে দেবেন বলে আমাদের কাছ থেকে নগদে এক হাজার টাকা ও পরে আরও পনেরশ টাকা দিতে হবে, না দিলে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া হবেনা বলে জানিয়েছেন। খবরে জানা যায়, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে প্রতিটি বাড়িতে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া হবে। কতিপয় দালাল এই সুযোগ কাজে লাগিয়ে মোটা অংকের টাকা চাঁদাবাজি করছে। আর একারনে শেখ হাসিনা সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণœ হচ্ছে বলে মনে করেন সচেতন মহল। বিষয়টি তদন্ত পূর্বক আইনগত ব্যবস্থাগ্রহণ করতে প্রশাসনের প্রতি জোর দাবি জানিয়েছে এলাকাবাসী। এবিষয়ে নাইম চৌধুরীর সাথে মুঠো ফোনে কথা হলে তিনি বলেন, এই কাজটা এলাকার লোক আমাকে দিয়ে করিয়েছে। আমি কাজটা করতে চাইনি। আমি আমার বাড়ির বিদ্যুৎ এর জন্য চেষ্টা করছি। ওরা বলছে যত টাকা লাগে আমরা দেব। আমিও নিজে টাকা দিয়েছি। যতবার বিদ্যুৎ অফিস থেকে লোকজন এসেছেন ততবারই এক থেকে দেড় হাজার টাকা বকশিশ দিতে হয়েছে। আজ পর্যন্ত যারা বড় বড় কথা বলে গেছে তাদেরকেও টাকা দিতে হয়েছে। আর তারা তো নিজে হাতে বকশিশ দিয়েছে। এক প্রশ্নের জবাবে বলেন, ভাই বিদ্যুতের কাজ টাকা ছাড়া হয় না। যে ভালো কাজ করবে তার বদনাম হবে। আমি আবেদন করলে বিদ্যুৎ অফিসারকে টাকা দিতে হয়েছে সরজমিনে আসার জন্য। তিনি আরোও বলেন, আমার বিরুদ্ধে পত্রিকায় লিখে কোন লাভ হবে না। আপনারা লিখে যদি কিছু করতে পারেন তাহলে লিখেন।

শেয়ার

আরও খবর
© All rights reserved © 2020 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazardristip41