1. admin@dainikdrishtipat.com : admin :
  2. driste4391@yahoo.com : Dailik Drishtipat : Dailik Drishtipat
শনিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০১:১৩ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
আখ চাষ সম্ভাবনার দিগন্ত বিস্তৃত করলেও ॥ বাগানে ভাইরাসের হানা ॥ লোকসানের মুখে চাষীরা দাকোপে পানখালী নদী ভাঙ্গনে বেড়িবাঁধ ঝুঁকিপূর্ণ অটিস্টিক কিশোরীর ইচ্ছে পূরণে ভিডিও কলে কথা বললেন প্রধানমন্ত্রী ভোমরা বন্দরের বিপরীতে ভারতে পচছে ১৬৫ ট্রাক পেঁয়াজ: কোটি কোটি টাকার ক্ষতির মুখে আমদানিকারকরা সাতক্ষীরায় মাদকাসক্ত সন্দেহে আটক ৩৮ জনের মধ্যে ১৬ জনের দেহে মাদক পজেটিভ হেফাজত আমির আহমদ শফীর মৃত্যু জেলা ক্রীড়া সংস্থার নির্বাচন: জেলা ক্লাব ঐক্য পরিষদ প্যানেলে যুক্ত হচ্ছে একের পর এক স্পোর্টিং ক্লাব বড়বাজার কাঁচা ও পাকা মাল ব্যবসায়ী সমিতির নির্বাচন আজ ॥ সভাপতি-সম্পাদক সহ ১৩ পদে লড়ছেন ২৪ জন ইটাগাছা হাসান হুসাইন জামে মসজিদে ১ লক্ষ টাকার চেক প্রদান করলেন প্যানেল চেয়ারম্যান আমিনুর রহমান বাবু দেবহাটা প্রেসক্লাবের সভা অনুষ্ঠিত ॥ আহবায়ক কমিটি গঠন

আশাশুনির শালখালী বাজার টু কালিবাড়ী সড়কের বেহাল দশা

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ২৩ জানুয়ারী, ২০২০

এম এম নুর আলম ॥ আশাশুনি উপজেলার শালখালী বাজার টু চাম্পাফুল-কালিবাড়ী সড়কে বড় বড় গর্তের সৃষ্টি হয়ে সড়কটি বেহাল দশায় পরিনত হয়েছে। ফলে, দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে চলাচলকৃত সকল প্রকার যানবাহনসহ পথচারীদের। সরজমিনে ঘুরে জানাগেছে, উপজেলার শোভনালী ইউনিয়নের ব্যস্ততম সড়কটি দিয়ে হাজার হাজার মানুষ শুধু শোভনালীতে নয়, আশাশুনি সদর, কালিগঞ্জ ও দেবহাটা এবং সাতক্ষীরা জেলা শহরে যাতায়াত করে থাকে। এছাড়া ইউনিয়নের কয়েকটি ওয়ার্ডের গ্রামের সাধারণ মানুষের উপজেলার সাথে যোগাযোগের একমাত্র সড়ক হিসেবে এ সড়কটি ব্যবহার হয়ে থাকে। চাম্পাফুল-কালিবাড়ী বাজার থেকে শালখালী বাজারের গোদাড়া, বালিয়াপুর, বাটরা ও শালখালী বাজার টাওয়ার সংলগ্ন সড়কসহ দীর্ঘ ৬ কিলোমিটার সড়কের কয়েকটি স্থানে কার্পেটিং তো দুরের কথা রাস্তার দুধারে মৎস্য ঘের থাকায় রাস্তার বেড রসে নরম হয়ে রাস্তার বিভিন্ন যায়গায় ছোট-বড় গর্তের সৃষ্টি হয়ে যানবাহন চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়েছে। চলাচলে অসুবিধা থাকলেও অন্য কোন উপায় না থাকায় মানুষ মালামাল পরিবহন ও যাতয়াতে সড়কটি ব্যবহার করতে বাধ্য হওয়ায় প্রতিনিয়ত ঘটছে ছোট-বড় দুর্ঘটনা। স্থানীয়রা জানান, সড়কের উভয় পাশের মৎস্য চাষীরা উক্ত সড়কটিকে তাদের মৎস্য ঘেরের বাঁধ হিসেবে ব্যবহার করে থাকে। কোথাও কোন ্আউট ড্রেনের ব্যবস্থা করা হয়নি। ফলে ঘেরের পানি চুইয়ে ও ঝড়ো হাওয়াসহ বাতাসে ঘেরের পানির তুফানে সড়কের পাশের মাটি ভেঙ্গে মাটি রসালো হয়ে পড়েছে। অতিরিক্ত মাল বোঝাই ভারী যানবাহন সড়কে চলাচল করায় একাধিক স্থানে এক থেকে দুই ফুট করে গর্ত হয়ে উবড়–-থুবড়ো হয়ে গেছে। কামালকাটি স্কুল ছাত্র-ছাত্রীরা জানায়, এ সড়ক দিয়ে তারা প্রতিদিন বিদ্যালয়ে যাতায়াত করে থাকে। ফলে তাদের চরম ভোগান্তি পোহাতে হয়। সড়কে প্রতিনিয়ত চলাচলকারী মটরসাইকেল চালকগন বলেন, জরাজীর্ণ এ সড়ক দিয়ে রোগী বা বয়স্ক লোক নিয়ে চলাচল করাটা খুবই দূরহ ব্যাপার হয়ে দাড়িয়েছে। আশাশুনি উপজেলা প্রকৌশলীর দপ্তরের পক্ষ থেকে রাস্তার দূরাবস্তার বিষয়টি উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে বলে জানাগেছে। খুব শিঘ্রই সংস্কার কাজ শুরু করা হবে বলে আশা করা হচ্ছে। এব্যাপারে ভূক্তভোগী সচেতন এলাকাবাসী দ্রুত এ সমস্যা সমাধানে উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ কামানা করেছেন।

শেয়ার

আরও খবর
© All rights reserved © 2020 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazardristip41