1. admin@dainikdrishtipat.com : admin :
  2. driste4391@yahoo.com : Dailik Drishtipat : Dailik Drishtipat
রবিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৬:৫৮ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
শ্যামনগর ও আশাশুনী প্রতিনিধিদের সাথে মত বিনিময় -জিএম নুর ইসলাম \ দৃষ্টিপাতের প্রতিনিধিদের কে দৃষ্টিপাতের মতই হতে হবে আশাশুনির নদী ভাঙ্গন এলাকা পরিদর্শনকালে ডাঃ রুহুল হক এমপি \ ঝুঁকিপূর্ণ বেড়ীবাঁধ নির্মাণে দুই হাজার কোটি টাকা বরাদ্ধ আসছে আহমদ শফীর জানাজায় লাখো মানুষের ঢল, দাফন সম্পন্ন দৈনিক দৃষ্টিপাতের সহ সম্পাদক ওমর ফারুকের দাদী শাশুড়ীর ইন্তেকাল পানিতে ডুবে মৃগী রোগীর মৃত্যু ৫ দিন বন্ধ থাকার পর ভোমরা স্থল বন্দর দিয়ে পেঁয়াজ আমদানি শুরু রেড ক্রিসেন্ট ইউনিটের সেক্রেটারী সৈয়দ ফিরোজ কামাল শুভ্র নির্বাহী সদস্য মীর তানজীর আহমেদ সাতক্ষীরা সুলতানপুর বড় বাজার কাঁচা মাল ব্যবসায়ী সমিতির ত্রি-বার্ষিক নির্বাচন সম্পন্ন \ সভাপতি বাদশা, সম্পাদক বাবু নির্বাচিত জেলায় করোনা পজেটিভ ১ জন \ মোট সনাক্ত ১১৯১ দেবহাটা প্রেসক্লাবের নির্বাচনী তফশীল ঘোষনা

আইপিএল স্পন্সরের দৌড়ে বাবা রামদেবের পতঞ্জলি!

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • Update Time : সোমবার, ১০ আগস্ট, ২০২০

এফএনএস স্পোর্টস: আইপিএলের টাইটেল স্পন্সর থেকে সরে দাঁড়িয়েছে চীনা কোম্পানি ভিভো। ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড (বিসিসিআই) তাই আইপিএলের নতুন স্পন্সর খুঁজছে। সেই দৌড়ে ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান অ্যামাজন, লার্নিং অ্যাপ ড্রিম ইলেভেন কিংবা বাইজুর নাম শোনা যাচ্ছে। কিন্তু এবারের নামটি চমক জাগানিয়া। ইয়াগো গুরু বাবা রামদেবের সংস্থা পতঞ্জলি আইপিএলের টাইটেল স্পন্সর হতে চায় বলে সংবাদ মাধ্যমের খবর। রামদেবের সংস্থার মুখপাত্র এসকে তিজারাওয়ালা ইকোনমিক টাইমসকে বলেছেন, ‘আমরা আইপিএলের ১৩তম আসরের টাইটেল স্পন্সর হতে চাই। বিশ্বে পতঞ্জলির বাজার তৈরি করাই আমাদের লক্ষ্য।’ তারা বিসিসিআইকে আইপিএলের বিজ্ঞাপন স্বত্ত্ব পাওয়ার জন্য প্রস্তাব দেওয়ার কথা ভাবছে বলেও জানিয়েছেন তিজারাওয়ালা। তবে ক্রীড়া ও বাণিজ্য বিশ্লেষকরা মনে করছেন, ভিভোর মতো অন্য কোন বহুজাতিক প্রতিষ্ঠান আইপিএলের স্বত্ত্ব পেলে তা বিশ্বের কাছে আইপিএলের জনপ্রিয়তা বাড়াবে। পতঞ্জলি টাইটেল স্পন্সর পেলে অর্থ পাওয়া ছাড়া কোন লাভ নেই আইপিএলের। বরং অনেক বেশি লাভ হবে পতঞ্জলির। দেশি কোন প্রতিষ্ঠান আইপিএলের স্বত্ত্ব পেলে মানুষের কাছে তার ইতিবাচক প্রভাব বাড়বে। ভিভোর সঙ্গে আইপিএলের প্রতি মৌসুমে ৪৪০ কোটি রুপির চুক্তি ছিল। বিসিসিআইয়ের জন্য এখন তাই ভিভোর মতো শক্তিশালী আর্থিক কাঠামো সমৃদ্ধ প্রতিষ্ঠান পাওয়া কঠিন হয়ে দাঁড়িয়েছে। তবে বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট সৌরভ গাঙ্গুলি মনে করেন না, ভিভো চলে যাওয়ায় আইপিএল কিংবা বোর্ড আর্থিক সংকটে পড়বে। গাঙ্গুলি বলেছেন, ‘ভালো জিনিস যেমন রাতারাতি পাওয়া যায় না। তেমনি ভালো জিনিস রাতারাতি হারিয়েও যায় না। আমি এটাকে আর্থিক সংকট বলতে রাজি নই। বরং এটাকে ছোট একটা ধাক্কা বলা চলে। বিসিসিআই অনেক বড় প্রতিষ্ঠান। সামান্য এই ঝাঁকুনি সামলানোর প্রশাসনিক দক্ষতা আমাদের আছে।’

শেয়ার

আরও খবর
© All rights reserved © 2020 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazardristip41