1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : Dailik Drishtipat : Dailik Drishtipat
মঙ্গলবার, ২৬ জানুয়ারী ২০২১, ০৫:১২ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
বিদ্যুৎ উৎপাদন সক্ষমতার অর্ধেকও এখন ব্যবহার হচ্ছে না আদালত প্রাঙ্গন বিচার প্রার্থী বান্ধব করা হবে -সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ শেখ মফিজুর রহমান ক্যারিবিয়ানদের হোয়াইটওয়াশ করে বাংলাদেশের সিরিজ জয় বৈকারী শীত বস্ত্র বিতরণ করলেন জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম ধুলিহরে ভ্যান উল্টে চালক নিহত সাতক্ষীরা পৌর নির্বাচনে আ’লীগ মনোনিত প্রার্থীর পক্ষে গনসংযোগ বীর মুক্তিযোদ্ধা এড. এন্তাজ আলীর মৃত্যু বার্ষিকী আজ দীর্ঘদিন পর প্রধানমন্ত্রীর উপস্থিতিতে মন্ত্রিসভা বৈঠক বিসিকের নবযোগদানকৃত ডিএম এর সাথে সৌজন্য সাক্ষাত সাতক্ষীরা পৌর নির্বাচনে কাউন্সিলর পদে আওয়ামীলীগের সমর্থন পেলেন যারা

পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান পিপিএম (বার) এর প্রেস ব্রিফিং ॥ বৃদ্ধ কৃষক ও নবজাতক হত্যার লোমহর্ষক রহস্য উদঘাটন করলো সাতক্ষীরা পুলিশ

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • Update Time : শনিবার, ২৮ নভেম্বর, ২০২০

স্টাফ রিপোর্টার ॥ জাতীয় ভাবে আলোচিত পনের দিনের নবজাতক শিশু ও বৃদ্ধ হত্যার লোমহর্ষক ও চাঞ্চল্যকর ঘটনা উদঘাটন করলো সাতক্ষীরা পুলিশ। মর্মান্তিক দুই হত্যাকান্ডের সূত্রপাত, ঘটনা এবং আসামীদের গ্রেফতার সহ ঘটনা প্রবাহ বর্ণনা করলেন সাতক্ষীরা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান পিপিএম (বার)। গতকাল পুলিশ লাইন ড্রিল গেটে প্রেস ব্রিফিং-এ পুলিশ সুপার জানান কলারোয়া উপজেলার দেয়াড়া গ্রামের বৃদ্ধ মোসলেম উদ্দীন ও সদর উপজেলার হাওয়ালখালি গ্রামের পনের দিনের নবজাতক শিশু সোহান হত্যার রহস্য উদঘাটন করেছে সাতক্ষীরার পুলিশ। পুলিশ সুপার বলেন বৃদ্ধ কৃষককে হত্যাকারী জামাই আবুল কালাম এবং তার ভাতিজা হাবিব ইসলাম হত্যাকান্ডটি ভিন্নখাতে প্রবাহিত করনের অপচেষ্টা করেছিল। তারা হত্যাকারী হিসেবে মাদ্রাসা সুপার এর ঘাড়ে দোষ চাপাতে চেয়েছিল। সেই হিসেবে বৃদ্ধের জবাই করা লাশের পাশে মাদ্রাসা সুপারের দুই কপি ছবি এবং একটি চেকের পাতা রেখে দেয়। উদ্দেশ্য- পুলিশকে বিভ্রান্তিতে ফেলানো। সাতক্ষীরা পুলিশ অতি দক্ষতা, সতর্কতা এবং তথ্য প্রযুক্তির ব্যবহারের মাধ্যমে হত্যাকারী আবুল কালাম ও তার ভাতিজা হাবিব ইসলামকে চিহিৃত করে পুলিশী তদন্ত এবং তৎপরতা বিষয়ে হত্যাকারীরা অবগত হয়ে প্রতিবেশী দেশে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। কিন্তু পুলিশের তৎপরতা, দক্ষতা আর কৌশলের কাছে তারা পরাস্ত হয় এবং পালিয়ে যাওয়ার প্রাক্কালে শুক্রবার বিকালে কলারোয়ার সীমান্ত গ্রাম কেড়াগাছি হতে তাদেরকে গ্রেফতার করে। উল্লেখ্য, পুলিশ হত্যাকারীকে চল্লিশ ঘন্টার মধ্যে গ্রেফতার করতে সমর্থ হয়। গ্রেফতারের পর তাদের স্বীকারোক্তি মোতাবেক ছুরি, হেসু, গ্ল্যাবস, জ্যাকেট ও রক্তকাদা মিশ্রিত প্যান্ট উদ্ধার করে। অপরদিকে বৃহস্পতিবার সদর উপজেলার হাওয়ালখালী গ্রামের সোহাগ হোসেন ও ফতেমা খাতুন দম্পতির পনের দিনের শিশু সোহানকে কে বা কারা চুরি করে নিয়ে গেছে এমন খবরে পুলিশ তদন্তে নামলে বেরিয়ে লোমহর্ষক তথ্য। অত্যন্ত সতর্কতা ও দক্ষতার সাথে পুলিশী তদন্তে বেরিয়ে আসে শিশু সোহানকে চোরে চুরি করেনি, নিজ পিতামাতাই তাকে হত্যা করে সেফটি ট্যাংকিতে ফেলে দিয়েছে। বিষয়টি পুলিশ নিশ্চিত হলে পিতা সোহাগ ও মাতা ফতেমা খাতুনকে উদঘাটিত তথ্যের ভিত্তিতে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তারা স্বীকার করে নবজাতককে হত্যা করেছে তারা। হত্যাকান্ডের কারন হিসেবে পিতামাতা স্বীকার করেছে জন্মের পরপরই শিশুটি হার্ট, ব্রেন ও এ্যাজমা সমস্যায় ভুগতে থাকে। অসুস্থতার কারনেই এই হত্যাকান্ড। সদর সার্কেল সহকারি পুলিশ সুপার মির্জা সালাহউদ্দীন এর নেতৃত্বে তথ্য উদঘাটন করে পুলিশ। হৃদয় বিদারক অনাকাঙ্খিত এই হত্যাকান্ড দুটি সাতক্ষীরার সীমানা পেরিয়ে জাতীয় ভাবে আলোচিত। বৃদ্ধ কৃষক হত্যা রহস্য এবং আসামী গ্রেফতারে পুলিশ সময় নিয়েছে মাত্র চল্লিশ ঘন্টা অন্যদিকে নবজাতক শিশু সোহান হত্যা রহস্য, হত্যাকারী চিহিৃত সহ আসামী গ্রেফতারের সময় লেগেছে অতি সামান্য সময়। পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান পিপিএম (বার) এর প্রেস ব্রিফিং এর সময় অন্যান্য পুলিশ অফিসারদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সিনিয়র সহকারি পুলিশ সুপার দেবহাটা সার্কেল শেখ ইয়াছিন আলী, সদর সার্কেল সহকারি পুলিশ সুপার মির্জা সালাহউদ্দীন, সদর থানার ওসি আসাদুজ্জামান সহ পুলিশের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা।

শেয়ার

আরও খবর
© All rights reserved © 2020 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazardristip41