1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : Dailik Drishtipat : Dailik Drishtipat
বৃহস্পতিবার, ১৩ মে ২০২১, ০৯:২৩ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
মানুষের ঈদ উৎসব \ উচ্চ করোনা সংক্রমণের শঙ্কা ঘুর্ণিঝড় আম্ফানে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে খাদ্য সামগ্রি বিতরণ সাতক্ষীরার বাজার গুলোতে তালের শাঁসের উপস্থিতি \ তপ্ত শরীর তৃপ্তি আর স্বাদে অদ্বিতীয় সাতক্ষীরায় বৈশাখের টানা বৃষ্টিতে জনজীবন বিপর্যস্ত \ শহর গামী মানুষের দূর্ভোগ চরমে আজ চাঁদ দেখা গেলে কাল ঈদ আমার মা আমাদের মা -ইয়াসমিন নাহার, সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সাতক্ষীরা। সৌদি আরবে চাঁদ দেখা যায়নি, ঈদ বৃহস্পতিবার দেবহাটার সুশিলগাতী আম বাগানে মহিলার লাশ সাতক্ষীরা জেলা পরিষদ মহামারী ও দূর্যোগকালীন সময়ে মানবিক সহায়তা নিয়ে মানুষের পাশ্বে দাড়ায় আলহাজ্ব নজরুল ইসলাম সাতক্ষীরা স্বাস্থ্য বিভাগের উদ্যোগে জলবায়ূ পরিবর্তন সড়ক দূর্ঘটনা প্রতিরোধ ও নিরাপদ খাদ্য বিষয়ক কর্মশালা

তীব্র পানির সংকটে উপকূলীয় অঞ্চল \ পুকুর খনন, ফ্লিটার বসানো সহ চাই কার্যকারী পদক্ষেপ

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • Update Time : মঙ্গলবার, ৪ মে, ২০২১

রমজাননগর (শ্যামনগর) প্রতিনিধি \ পানি পানি পানি বিশুদ্ধ খাওয়ার পানি,ভাত কাপড় ত্রাণ চাইনা, ৫ সদস্যের পরিবারে চাই প্রতিদিন ১ কলসি পানি,বলছি পানি নিতে আসা এক বৃদ্ধার কথা। চলছে পবিত্র রমজান মাস,নেই বৃষ্টি প্রচন্ড গরমে হাহাকার,নেই বিশুদ্ধ খাওয়ার পানির সরবরাহ।বলছি শ্যামনগর উপজেলার উপকূলীয় অঞ্চল কৈখালী ও রমজাননগর ইউনিয়নের তীব্র খাওয়ার পানির সংকটের কথা। সরেজমিনে ঘুরে দেখাযায়, একফোঁটা পানির কত হাহাকার হাজার হাজার পরিবার, বিশুদ্ধ খাওয়ার পানির অভাবে এলাকায় ডায়রিয়ার প্রকোপ শুরু হয়েছে। মানুষের গোসল করার পানিও পর্যন্ত ফুরিয়ে যাচ্ছে। উলে­খ্য, বিভিন্ন প্রচারের মাধ্যমে প্রতিদিন সেচ্ছাসেবী সংগঠন ও মানবিক সদস্যদের অক্লান্ত পরিশ্রমে কয়েক হাজার লিটার সুপেয় খাওয়ার পানি বিতরণ করা হচ্ছে, যেটা সংকলন নয়। রমজানের রোজা রেখে ৩-৪ ঘন্টা লাইনে দাঁড়িয়ে ১ কলসি পানি নিতে দেখা যাচ্ছে। পানি নিতে আসা গ্রামবাসীরা বলেন প্রতি এলাকায় একটি করে সরকারিভাবে পুকুর খনন, ফ্লিটার বসানো এবং সেগুলোর সঠিক পরিচর্যা থাকলে এত পানির সংকট থাকবে না ভবিষ্যতে। পবিত্র এই রমজান মাসে রোজাদারদের জন্য তৃষ্ণার্ত মানুষ পরিবারের বিশুদ্ধ খাওয়ার পানির সংকট নিরসনে সংশ্লিষ্ট উর্ধতন কর্মকর্তাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি, সরকারি, বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে পানি সংকট নিরসনে প্রচেষ্টায় এগিয়ে আসুন। গ্রামবাসীরা বলেন, সরকারের যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে সবিনয় অনুরোধ করছি আমাদের এলাকায় প্রচুর খাস জমি এবং পানি উন্নয়ন বোর্ডের বহু জায়গা অপতিত এবং অকেজো অবস্থায় পড়ে আছে, এসব অপতিত এবং অকেজো জায়গায় পুকুর খনন করে এবং নলকূপ বসিয়ে এলাকার সাধারণ জনগণকে জীবন রক্ষাকারি সুপেয় পানির সমস্যা থেকে রক্ষা করুন এবং সরকারিভাবে খননকৃত পুকুরগুলো সঠিকভাবে পরিচালনা করতে সর্বসাধারনের দাবী।

শেয়ার

আরও খবর
© All rights reserved © 2020 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themesbazardristip41